বিকাশ পিন ভুলে গেলে রিসেট করার নিয়ম

বিকাশ একাউন্টের পিন ভুলে যাওয়ার সমস্যাটা অনেকেরই হয়ে থাকে। তবে বিকাশ এর পিন ভুলে গেলে ঘাবড়ানোর কোনো কারণ নেই। আপনি সহজেই আপনার বিকাশ পিন রিসেট করতে পারবেন।

চলুন জেনে নেয়া যাক বিকাশ একাউন্টের পিন ভুলে গেলে কিভাবে সেটি পুনরায় সেট করবেন। সহজ কয়েকটি ধাপে বিকাশ পিন রিসেট করা যাবে। তো চলুন আলোচনা শুরু করি বিকাশ পিন পরিবর্তন এর নিয়ম সম্পর্কে।

বিকাশ পিন কী?

পিন (PIN) এর অর্থ হচ্ছে পারসোনাল আইডিন্টিফিকেশন নাম্বার বা ব্যক্তিগত সনাক্তকরণ সংখ্যা। পিন মূলত কয়েকটি সংখ্যার মাধ্যমে তৈরী একটি কোড যা বিভিন্ন মাধ্যমে লগিন করার ক্ষেত্রে প্রদান করা হয়। কোনো ব্যক্তির পিন শুধুমাত্র তিনি নিজেই জানবেন। অন্য কাউকে পিন বলে দেওয়া নিজের নিরাপত্তাকে দুর্বল করার সমতুল্য।

বিকাশ এর ক্ষেত্রেও এমন একটি পারসোনাল আইডিন্টিফিকেশন নাম্বার বা “পিন” রয়েছে, যা ব্যবহারকারীগণ একাউন্ট খোলার সময় সেট করা বাধ্যতামূলক। বিকাশ এর যেকোনো সার্ভিস ব্যবহারের ক্ষেত্রে এই বিকাশ পিন প্রদান করার দরকার হয়।

বিকাশ পিন লক হওয়ার কারণ

উল্লেখ্য যে নিজ থেকে বিকাশ একাউন্ট এর পিন লক হওয়ার কারণ নেই। কোনো গ্রাহক পিন ভুলে গিয়ে যদি তিনবার ভুল বিকাশ পিন প্রদান করে, তবে সেক্ষেত্রে বিকাশ পিন লক হয়ে যায়। এটি মূলত গ্রাহক ব্যতীত অন্য কেউ যাতে বিকাশ থেকে অর্থ খরচ বা উত্তোলন করতে না পারে, সেই লক্ষ্যে গৃহীত একটি সুরক্ষা স্তর।

 

Leave a Comment

Your email address will not be published.

AllEscort